বুধবার , ১৫ আগস্ট ২০১৮
মূলপাতা » ক্রিকেট » ‘নো’ বল নিয়ে মুখ খুললেন রুবেল

‘নো’ বল নিয়ে মুখ খুললেন রুবেল

Rubelবিশ্বকাপে নিজের সেরাটা ঢেলে দিয়েছেন রুবেল হোসেন। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তার অসাধারণ বোলিং-ই তার বড় প্রমাণ। গোটা ক্রিকেট বিশ্বে ওই পারফরম্যান্স নজর কেড়েছে। এতে নিজেও দারুণ খুশি ছিলেন। কিন্তু কোয়ার্টার ফাইনালে তার সঙ্গে যে অবিচার করেছেন আম্পায়াররা। এরপর কি আর খুশি থাকতে পারেন রুবেল?

ইনিংসের ৪০তম ওভারে বোলিং করছিলেন রুবেল। তার দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে ক্যাচ তুলে দেন রোহিত শর্মা। সেটি লুফে নেন ইমরুল কায়েস। হাইটের কারণে তা নো বল কল করেন পাকিস্তানি লেগ আম্পায়ার আলিম দার। পরে ইংল্যান্ডের আম্পায়ার ইয়ান গোল্ড সেটা নো বল ঘোষণা করেন। টিভি রিপ্লেতে দেখা যায়, বলটি রোহিতের কোমরের নিচেই ছিল! আলিম দারের একটি ‘বিতর্কিত’ সিদ্ধান্তের কারণে আউট হয়েও বেঁচে যান রোহিত! তখন ৯০ রানে ব্যাট করছিলেন। আম্পায়ারের কল্যাণে নতুন জীবন পেয়ে সেঞ্চুরি করেন রোহিত। দলকে এনে দেন লড়াকু পুঁজি। শেষ পর্যন্ত ম্যাচ-সেরাও হন তিনি।

আম্পায়াররা যেভাবে রুবেলকে উইকেট বঞ্চিত করলেন, তা বিশ্বকাপের ইতিহাসে বিরল। ক্ষোভটা আর ধরে রাখতে পারলেন না রুবেল। বাংলাদেশের মিডিয়াকে তিনি বলেন, ‘মাঠে আমাদের মূল্যায়ন করা হয়নি। রোহিত শর্মার আউটটি ছিল। কিন্তু আম্পায়াররা কেন যে ওটাকে নো বল দিয়েছে আমি জানি না। ওই সময় রোহিতের আউটটি দিলে ম্যাচের মোড় ঘুরে যেত। অত রান (৩০২) হতো না। আম্পায়াররা পক্ষপাতিত্বের পরিচয় দিয়েছে। বিষয়টি খুবই কষ্ট দিচ্ছে।’

এদিকে, কোয়ার্টার ফাইনালে বিরাট কোহলির উইকেটটি পেয়ে খুবই খুশি রুবেল। তবে তার খুশি হওয়ার নেপথ্যে অবশ্য কারণও আছে। সেটা ফুটে উঠেছে রুবেলের ভাষ্যেও, ‘অনুর্ধ্ব-১৯ দলে খেলায় সময় ওর সঙ্গে আমার তর্ক হয়েছিল। আমি খুব করে চেয়েছিলাম কোহলির উইকেটটি নেব। সেটা করতে পেরেছি। এতে আমি খুশি।’


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print