সোমবার , ২৩ জুলাই ২০১৮
মূলপাতা » প্রধান খবর » কোয়ার্টার ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া

কোয়ার্টার ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া

austr222জয়ের জন্য করতে হবে ৩৭৭ রান। ওয়ানডে ক্রিকেটে যা বড় টার্গেটই। বিশ্বকাপের জন্য আরও দুরুহ ব্যাপার। যেখানে জয় পেতে হলে করতে হবে রান তাড়া করার বিশ্বরেকর্ড। কিন্তু পারেনি শ্রীলংকা। রবিবার সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে ৬৪ রানের জয়ে শেষ হাসি অসিদের। সেই সঙ্গে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালের টিকিটও পেয়েছে মাইকেল ক্লার্ক বাহিনী। ঝড়ো গতির সেঞ্চুরির সুবাদে ম্যাচ সেরা গ্লেন ম্যাক্সওয়েল।

সেঞ্চুরির বদলে সেঞ্চুরি, ফিফটির বদলে ফিফটি। লড়াই হয়েছে পেস অ্যাটাকেও। এমন লড়াইয়ে জয় হয়েছে আসলে ক্রিকেটেরই। আগে ব্যাট করতে নেমে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে দুই ওপেনার তান্ডব সৃষ্টি করতে না পারলেও ম্যাক্সওয়েল ঘুর্ণিঝড়ে লন্ডভন্ড লংকান শিবির। করেছেন ৫১ বলে বিশ্ককাপের দ্বিতীয় দ্রুততম সেঞ্চুরি (৫৩ বলে ১০২)। তার সঙ্গে স্টিভেন স্মিথ (৭২), মাইকেল ক্লার্ক (৬৮), ওয়াটসনের (৬৭) কার্যকরী ফিফটি। সব মিলিয়ে রান পাহাড়ে চড়ে বসে অস্ট্রেলিয়া (৫০ ওভারে নয় উইকেটে ৩৭৬)। লংকানদের হয়ে মালিঙ্কা ও পেরেরা দুটি, ম্যাথুস, প্রসন্ন ও দিলশান নেন একটি করে উইকেট।

অস্ট্রেলিয়ার বড় স্কোরের জবাবটা লংকার হয়ে দিতে পেরেছে শুধু তিনজন। কুমার সাঙ্গাকারা করেছেন বিশ্বকাপের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো টানা তিন সেঞ্চুরি। সাজঘরে ফেরেছেন শেষ পর্যন্ত ১০৭ বলে ১০৪ রান করে। দিলশান করেছেন ফিফটি (৬২)। চান্দিমাল ২৪ বলে ৫২ রান করে আহত অবসর। হিসাবটা এখানেই গোলমেলে লেগেছে শ্রীলংকার। যদি হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটটা আজ না হতো চান্দিমালের, তবে নতুন রেকর্ডও হয়ে যেতে পারত।

আশা ছিল প্রথমবারের মতো মাহেল জয়াবর্ধনের দিকে। কিন্তু ১৯ রানে রান আউট হওয়ায় লংকা সমর্থকদের চরম হতাশ করেন তিনি। লংকান অধিনায়ক অ্যাঞ্জোলো ম্যাথুস (৩৫) লড়াই করার চেষ্টা করলেও শেষ পর্যন্ত ওয়াটসনের কাছে ধরা। শেষের দিকে অসি পেসারদের রুখতেই পারেনি লংকান ব্যাটসম্যানরা। স্টার্ক, ফকনার ও জনসনেই লংকান ইনিংসের সমাপ্তি। বল বাকি ছিল তাও ২২টি। তবে ৩১২ রানেই অল আউট। আশা ছিল আহত অবসর ভেঙ্গে আবার নামতে পারবেন চান্দিমাল। কিন্তু পারেননি তিনিও। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে সর্বোচ্চ তিন উইকেট নেন জেমস ফকনার। স্টার্ক-জনসন দুটি, ওয়াটসন নেন একটি উইকেট।

এই ম্যাচ হারলেও শ্রীলংকার হয়ে ব্যক্তিগত অনেক অর্জনের মালিক হয়েছেন কুমার সাঙ্গাকারা। ওয়ানডে ক্রিকেটে দ্বিতীয় ক্রিকেটার হিসাবে ছুঁয়েছেন ১৪ হাজার রানের মাইলফলক। বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো করেছেন টানা তিন সেঞ্চুরি। তবে দিনশেষ পরাজয়ই যেন বেশী পোড়াবে লংকান এই ব্যাটসম্যানকে।

পাঁচ ম্যাচে সাত পয়েন্ট নিয়ে অস্ট্রেলিয়া কোয়ার্টার ফাইনালে। শ্রীলংকাও হাটছে সেই পথেই। পাঁচ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট ছয়। শেষ ম্যাচে শ্রীলংকা ও অস্ট্রেলিয়ার প্রতিপক্ষ একটি জয়ও না পাওয়া স্কটল্যান্ড। এ পুল থেকে আগেই শেষ আটের খেলা নিশ্চিত করেছে নিউজিল্যান্ড। পাঁচ ম্যাচে কিউইদের সংগ্রহ পূর্ণ ১০ পয়েন্ট।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print