মঙ্গলবার , ১৯ জুন ২০১৮
মূলপাতা » টেনিস » নৌমন্ত্রীর নেতৃত্বে খালেদার কার্যালয় ঘেরাও

নৌমন্ত্রীর নেতৃত্বে খালেদার কার্যালয় ঘেরাও

নৌমন্ত্রীর নেতৃত্বে খালেদার কার্যালয় ঘেরাওবিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার শুলশানের কার্যালয় ঘেরাও কর্মসূচি পালন করছে শ্রমিক-কর্মচারী-পেশাজীবী-মুক্তিযোদ্ধা সমন্বয় পরিষদ। এতে নেতৃত্ব দিচ্ছেন সমন্বয় পরিষদের আহ্বায়ক নৌমন্ত্রী শাজাহান খান।
আজ সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সমন্বয় পরিষদের কয়েক হাজার নেতা-কর্মী মিছিল নিয়ে গুলশানে খালেদা জিয়ার কার্যালয় ঘেরাও করতে যান। গুলশান ২-এর ৮৬ নম্বর সড়কের মাথায় ৯০ নম্বর সড়কে তাঁদের আটকে দেয় পুলিশ। সেখানে তাঁরা নানা ধরনের ব্যানার-ফেস্টুন হাতে নিয়ে হরতাল-অবরোধবিরোধী স্লোগান দেন।
৮৬ নম্বর সড়কে খালেদা জিয়ার কার্যালয় অবস্থিত। কার্যালয়ের ভেতরে অবস্থান করছেন তিনি।
বিএনপি-জামায়াত জোটের হরতাল-অবরোধের নামে ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ, সন্ত্রাস-নৈরাজ্য, পেট্রলবোমা মেরে মানুষ হত্যার প্রতিবাদে এ কর্মসূচি পালন করছে সমন্বয় পরিষদ। গতকাল রোববার নৌমন্ত্রী এ কর্মসূচি ঘোষণা করেন।
প্রত্যক্ষদর্শীদের ভাষ্য, কর্মসূচি পালনের উদ্দেশে আজ সকাল থেকে গুলশান সেন্ট্রাল পার্কে জমায়েত হতে থাকেন সমন্বয় পরিষদের নেতা-কর্মীরা। বাসে করে ঢাকা ও ঢাকার অাশপাশের এলাকা থেকে তাঁরা সেখানে আসতে থাকেন। এ কর্মসূচির কারণে গুলশান ও বনানী এলাকায় যানজট সৃষ্টি হয়।

সেন্ট্রাল পার্কে উপস্থিত হন শাজাহান খান, ১৪ দলের নেত্রী শিরিন আক্তার। একপর্যায়ে সেখানে বক্তব্য দেন শাজাহান খান। গুলশান থেকে খালেদা জিয়ার কার্যালয় সরিয়ে নেওয়ার জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানান তিনি।
প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে শাজাহান খান বলেন, ‘খালেদা জিয়াকে গ্রেপ্তার করা না হলে জনগণই তাঁকে গ্রেপ্তার করে কাশিমপুর কারাগারে নিয়ে যাবে।’
ঘেরাও কর্মসূচি সম্পর্কে নৌমন্ত্রী বলেন, ‘আজকে আমরা জানান দিচ্ছি। পুলিশ ভাইয়েরা আমাদের যত দূর পর্যন্ত যেতে দেবে, তত দূর পর্যন্ত যাব। কেউ যেন কোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা না করে। আমাদের কর্মসূচি চলবে। আমরা যুদ্ধংদেহী মনোভাব নিয়ে যাব। তবে আমাদের কর্মসূচি হবে শান্তিপূর্ণ।’

শাজাহান খান তাঁর বক্তব্যে পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করেন। ১৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় ট্রাক মিছিল এবং ১৯ ফেব্রুয়ারি মতিঝিল থেকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার পর্যন্ত জাতীয় পতাকা হাতে মিছিল করবে সমন্বয় পরিষদ।
দুপুর ১২টার দিকে গুলশান সেন্ট্রাল পার্ক থেকে মিছিল নিয়ে খালেদা জিয়ার কার্যালয় অভিমুখে রওনা হন সমন্বয় পরিষদের নেতা-কর্মীরা।
মিছিলটি খালেদা জিয়ার কার্যালয় অভিমুখে যাওয়ার সময় দুপুর ১২টা ২০ মিনিটের দিকে গুলশান ২ নম্বর মোড়ের পাশে মেট্রোপলিটন শপিং প্লাজার সামনে একটি ককটেল বিস্ফোরিত হয়। মিছিলে থাকা এক যুবকের পায়ের ওপর এসে ককটেলটি পড়ে। এ ঘটনায় উপস্থিত নেতা-কর্মীরা ক্ষুব্ধ হয়ে মেট্রোপলিটন শপিং প্লাজায় ভাঙচুর চালান।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print