শুক্রবার , ২০ জুলাই ২০১৮
মূলপাতা » ক্রিকেট » ম্যাক্সওয়েল-ঝড়ে শিরোপা অস্ট্রেলিয়ার

ম্যাক্সওয়েল-ঝড়ে শিরোপা অস্ট্রেলিয়ার

Australia v England: Carlton Mid ODI Tri Series - Finalঘরের মাঠে শুরু হচ্ছে ক্রিকেট বিশ্বকাপ। এ আসরের শিরোপার অন্যতম দাবিদার অস্ট্রেলিয়া। আর মাত্র ১২ দিন পর মাঠে গড়াবে ক্রিকেট মহাযজ্ঞের ১১তম আসর। তার আগে নিজেদের ভালোভাবেই ঝালিয়ে নিয়েছেন ওয়ার্নার-স্মিথ-বেইলিরা।

রোববার ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে তাদের দাপটে কোণঠাসা হয়ে পড়ে ইংল্যান্ড। শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে ব্যাটে-বলে ঝড় তোলেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। এদিন তার অলরাউন্ডিং নৈপূণ্যে ইংল্যান্ডকে ১১২ রানে হারিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের শিরোপা জিতল অস্ট্রেলিয়া।

প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৭৮ রান করে অস্ট্রেলিয়া। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১৬৬ রানেই গুটিয়ে যায় ইংল্যান্ডের ইনিংস।

ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন গ্রাউন্ডে যদিও টস নামক ভাগ্য পরীক্ষায় হেরে যান স্বাগতিক অধিনায়ক জর্জ বেইলি। প্রথমে তাদের ব্যাট করতে আমন্ত্রণ জানান ইংল্যান্ডের অধিনায়ক ইয়ান মরগান।

শুরুটা অবশ্য নড়বড়েই ছিল অস্ট্রেলিয়ার। জেমস অ্যান্ডারসনের শিকার হয়ে রানের খাতা না খুলতেই বিদায় নেন উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান অ্যারন ফিঞ্চ। এই ধকল সামলে উঠতে না উঠতেই দলীয় ২৩ রানের মাথায় সাজঘরের পথ বেছে নেন অপর ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার (১২)। তাকেও প্যাভিলিয়নের পথ দেখান অ্যান্ডারসন। অস্ট্রেলিয়ার স্কোরশিটে যখন রানের সংখ্যা ৪৬, তখন মঈন আলীর বলে আত্মাহুতি দেন দলীয় অধিনায়ক জর্জ বেইলি (২)। এদিন ৪৬ রানের বেশি করতে পারেননি দুর্দান্ত ফর্মে থাকা অস্ট্রেলিয়ান সেনসেশন স্টিভেন স্মিথ।

দলীয় ৬০ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে বিপদেই পড়েন স্বাগতিকরা। কিন্তু পঞ্চম উইকেট জুটিতে অস্ট্রেলিয়াকে খাদের কিনার থেকে টেনে তোলেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ও শন মার্শ। এই জুটির কল্যাণে আসে ১৪১ রান।

৬৮ বলে ৬০ রান করে রানআউটের শিকার হন মার্শ। তবে অপর প্রান্ত থেকে লড়াই চালিয়ে যান ম্যাক্সওয়েল। ৯৮ বলে ১৫টি চারের মারে ৯৫ রান আসে তার ব্যাট থেকে। স্টুয়ার্ট ব্রডের শিকার হয়ে মাত্র  ৫ রানের আক্ষেপ নিয়ে সাজঘরে ফিরতে হয় ম্যাক্সওয়েলকে। শেষ দিকে এসে ব্যাটে ঝড় তোলেন জেমস ফকনার। মাত্র ২৪ বলে ৪টি চার ও ৪টি ছক্কায় ২০৮.৩৩ স্ট্রাইক রেটে ৫০ রানে অপরাজিত ছিলেন তিনি।

১০ ওভার বল করে ৫৫ রান খরচায় ৩ উইকেট নিয়ে ইংল্যান্ডের সেরা বোলার স্টুয়ার্ট ব্রড। ২টি উইকেট নিয়েছেন জেমস অ্যান্ডারসন। ১টি করে উইকেট পকেটে পুরেছেন স্টিভেন ফিন ও মঈন আলী।

লক্ষ্যমাত্রা তাড়া করতে নেমে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। দলীয় সর্বোচ্চ ৩৩ রান আসে রবি বোপারার ব্যাট থেকে। মঈন আলী করেন ২৬ রান। জেমস টেলরের ২৫ ও বোলার স্টুয়ার্ট ব্রডের ২৪ রানে ভর করে ১৫০-এর কোটা পূর্ণ করেন সফরকারীরা।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৪৬ রান খরচায় ৪ উইকেট নিয়েছেন ম্যাক্সওয়েল। ৩ উইকেট দখলে নেন মিচেল জনসন। হ্যাজেলউড পেয়েছেন ২ উইকেট। বাকি উইকেটটি পকেটে পুরেছেন জেমস ফকনার।

ব্যাট হাতে ৯৫ রান ও বল হাতে ৪ উইকেট নিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন অস্ট্রেলিয়ার গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। আর ম্যান অব দ্য সিরিজের পুরস্কার ওঠে আরেক অস্ট্রেলিয়ান মিচেল স্টার্কের হাতে।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print