শুক্রবার , ২২ জুন ২০১৮
মূলপাতা » কলেজ » জেএসসি-জেডিসিতে ৯১.৬৮% ও প্রাথমিক-ইবিতে ৯৬.৯৫% পাস

জেএসসি-জেডিসিতে ৯১.৬৮% ও প্রাথমিক-ইবিতে ৯৬.৯৫% পাস

জেএসসি ও প্রাথমিক সমাপনীজুনিয়র স্কুল (অষ্টম) সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল (মাদ্রাসা) সার্টিফিকেট (জেডিসি) এবং প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী (পঞ্চম) পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়েছে।

জেএসসিতে পাসের হার ৮৯.৮৫ শতাংশ, জেডিসির পাসের হার ৯৩.৫০ শতাংশ। জেএসসি ও জেডিসিতে পাসের গড় ৯১.৯৮ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৫৬ হাজার ২৩৫ জন।

প্রাথমিক সমাপনীতে পাসের হার ৯৭.৯২ এবং ইবতেদায়ীতে পাস করেছে ৯৫.৯৮ শতাংশ শিক্ষার্থী। প্রাথমিক ও ইবতেদায়ীতে পাসের গড় ৯৬.৯৫ শতাংশ। প্রাথমিকে জিপিএ-৫ পেয়েছে ২ লাখ ২৪ হাজার ৪১১ জন। আর ইবতেদায়ীতে ৬ হাজার ৪৪১ জন।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টায় শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলনে জেএসসি-জেডিসির ফল আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ করবেন।

এর আগে, সোমবার প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা রবীন্দ্রনাথ রায় জানান, মঙ্গলবার সাড়ে ১২টায় মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলনে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফল প্রকাশ করবেন।

দুটি মন্ত্রণালয় থেকে জানা গেছে, আনুষ্ঠানিক ফল প্রকাশের আগে সকালে প্রধানমন্ত্রীর কাছে দুই মন্ত্রী পরীক্ষার ফলাফলের সারসংক্ষেপ তুলে দেবেন।

দুটি পরীক্ষায় এবার ৫১ লাখ ৮৪ হাজার ৯৫৭ শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছে। জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষায় ২০ লাখ ৯০ হাজার ৬৯২ জন শিক্ষার্থী এবং প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ৩০ লাখ ৯৪ হাজার ২৬৫ জন অংশ নিয়েছে।

হরতালের কারণে এ বছর ২ নভেম্বরের (পূর্বনির্ধারিত) পরিবর্তে জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা শুরু হয় ৭ নভেম্বর। পরীক্ষা শেষ হয় ২০ নভেম্বর। পঞ্চম শ্রেণীর প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা গত ২৩ নভেম্বর শুরু হয়ে শেষ হয় ৩০ নভেম্বর।

যেভাবে পাওয়া যাবে জেএসডি-জেডিসির ফল

ঢাকা, রাজশাহী, কুমিল্লা, যশোর, চট্টগ্রাম, বরিশাল, সিলেট, দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের অধীনে জেএসসি এবং মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে জেডিসি পরীক্ষার অনুষ্ঠিত হয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়েছে, মন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলনের পর শিক্ষা বোর্ডগুলোর ওয়েবসাইট, সংশ্লিষ্ট সকল পরীক্ষা কেন্দ্র/শিক্ষা প্রতিষ্ঠান (সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের ই-মেইল/ওয়েবমেইল) এবং এসএমএসের মাধ্যমে একযোগে প্রকাশ করা হবে। কেন্দ্র সচিবদের কাছ থেকে সংশ্লিষ্ট পরীক্ষা কেন্দ্রের আওতাধীন সকল প্রতিষ্ঠানের প্রধানরা ফল সংগ্রহ করতে পারবেন।

পরীক্ষার ফল নিজ নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হতে সংগ্রহ করার পাশাপাশি পরীক্ষার্থীরা মোবাইলে এসএসএম, শিক্ষাবোর্ডগুলোর ওয়েবসাইটের (www.educationboardresults.gov.bd)  অথবা http://onlinebdmix.com সংশ্লিষ্ট বোর্ডের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ফল সংগ্রহ করতে পারবে।

মোবাইল এসএমএসের মাধ্যমেও ফল পেতে যে কোনো মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে JSC/JDC লিখে একটি স্পেস দিয়ে নিজ বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর, রোল নম্বর ও পাসের বছর (২০১৪) লিখে পাঠাতে হবে ১৬২২২ নম্বরে।

যেভাবে পাওয়া যাবে প্রাথমিক সমাপনীর ফল

প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনীর ফল www.dpe.gov.bd অথবা   http://dpe.teletalk.com.bd এবং এসএমএসের মাধ্যমে সংগ্রহ করা হবে।

এসএমএস’র মাধ্যমে ফল পেতে যে কোনো মোবাইল থেকে ডিপিই, (dpe) উপজেলা কোড, রোল নম্বর এবং পাসের বছর (২০১৪) লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে। ফিরতি ম্যাসেজে ফল জানানো হবে।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print