শুক্রবার , ২০ জুলাই ২০১৮
মূলপাতা » ফুটবল » যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশ হত্যা করল যুবক

যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশ হত্যা করল যুবক

imagefsfযুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যে গত রোববার গুলি করে ও গাড়িচাপা দিয়ে এক পুলিশ কর্মকর্তাকে হত্যা করেছেন এক যুবক। পরে ওই যুবককে আটক করা হয়েছে। নিউইয়র্কে এক যুবকের গুলিতে দুই পুলিশ কর্মকর্তা নিহত হওয়ার এক দিন পর এ ঘটনা ঘটল। খবর ইউএসএ টুডের।
নিহত ওই পুলিশ কর্মকর্তার নাম চার্লস কোন্ডেক। নিউইয়র্কের বাসিন্দা কোন্ডেক পাঁচ বছরের বেশি সময় নিউইয়র্ক নগর পুলিশের কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করার পর ফ্লোরিডায় স্থানান্তরিত হন। সেখানকার পিনেলাস কাউন্টির টারপন স্প্রিংস শহরের পুলিশ বিভাগে কাজ করছিলেন তিনি। কোন্ডেকের সন্দেহভাজন হত্যাকারী হিসেবে আটক যুবকের নাম মার্কো অ্যান্টোনিও পারিলা জুনিয়র (২৩)।
পুলিশ জানায়, পারিলা একজন নারীকে সঙ্গে নিয়ে গাড়িযোগে রোববার স্থানীয় সময় সকালে টারপন স্প্রিংস শহরের গ্রান্ড বুলেভার্ড এলাকার একটি বাড়ির সামনে যান। পারিলা যখন বাড়িটির দরজায় টোকা দিচ্ছিলেন, তখন ওই নারী গাড়িতে বসেই গান শুনছিলেন। এ সময় এক প্রতিবেশী ওই নারীকে গানের শব্দ কমাতে বলেন। তা না মানায় ওই প্রতিবেশী ৯১১ নম্বরে ফোন করে শব্দদূষণের অভিযোগ করেন। এরপর পুলিশ কর্মকর্তা কোন্ডেক ঘটনাস্থলে আসেন।
পুলিশ জানিয়েছে, কোন্ডেক গাড়ি থেকে বের হওয়ামাত্রই পারিলা তাঁর দিকে অগ্রসর হয়ে গুলি ছুড়তে থাকেন। একটি গুলি কোন্ডেকের বুলেটপ্রুফ জ্যাকেটে গিয়ে লাগে। তবে কোন্ডেক পাল্টা গুলি ছুড়তে সক্ষম হলেও মাটিতে পড়ে যান। তখন ওই নারীকে নামিয়ে দিয়ে দ্রুতগতিতে নিজে গাড়িতে উঠে পড়েন পারিলা। এরপর মাটিতে পড়ে যাওয়া কোন্ডেকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যান তিনি। তবে খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল পারিলাকে ধাওয়া করে। একপর্যায়ে তাঁর গাড়িটি একটি বৈদ্যুতিক খুঁটি ও পরে একটি থামা গাড়ির সঙ্গে ধাক্কা খাওয়ার পর দৌড়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন তিনি। তবে কিছুক্ষণ পরই তাঁকে আটক করতে সক্ষম হয় পুলিশ।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print