Warning: Declaration of tie_mega_menu_walker::start_el(&$output, $item, $depth, $args, $id = 0) should be compatible with Walker_Nav_Menu::start_el(&$output, $item, $depth = 0, $args = Array, $id = 0) in /home/dinkhon24/public_html/wp-content/themes/dinkhon24/functions/theme-functions.php on line 0
পাকিস্তান-ইংল্যান্ড ম্যাচে ৯ রেকর্ড - Dinkhon24.com
শুক্রবার , ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮
মূলপাতা » ক্রিকেট » পাকিস্তান-ইংল্যান্ড ম্যাচে ৯ রেকর্ড

পাকিস্তান-ইংল্যান্ড ম্যাচে ৯ রেকর্ড

???????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????????১৯৭৪ সালে ইংল্যান্ড সফরে প্রথমবারের মতো ওয়ানডে সিরিজ জিতেছিল পাকিস্তান। প্রথম সফর বলে হয়ত অতিথিদের সম্মান জানিয়েছিল ইংলিশরা। এরপর থেকে ইংল্যান্ডের মাটিতে টানা নয়টি ওয়ানডে সিরিজে পাকিস্তানকে কখনো জিততে দেয়নি ইংল্যান্ড।

পাকিস্তানের বিপক্ষে চলমান পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের তিনটিতে জিতে এবারও সিরিজ জিতে নিয়েছে ইংল্যান্ড। ট্রেন্ট ব্রিজে গতকাল মঙ্গলবার তৃতীয় ম্যাচে ইংল্যান্ডের ১৬৯ রানে জয়ের রাতে অনেকগুলো রেকর্ডের জন্ম হয়। নিচে সেগুলো তুলে ধরা হলো-

দলীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহ : ২০০৬ সালে অ্যামস্টেলভিনে দুর্বল নেদারল্যান্ডসকে পেয়ে ওয়ানডেতে দলীয় সর্বোচ্চ ৪৪৩ রানের রেকর্ড করেছিল শ্রীলঙ্কা। দলীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহের এই রেকর্ড দীর্ঘ ১০ বছর নিজেদের দখলেই রেখেছিল লঙ্কানরা। গতকাল তাদের হটিয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে ৪৪৪ রানে নতুন সর্বোচ্চ রেকর্ড গড়েছে ইংল্যান্ড। ইংনিংসের শেষ বলে বাউন্ডারি মেরে ইংল্যান্ডকে এক রানে এগিয়ে রেখে রেকর্ড গড়তে সাহায্য করেন জোস বাটলার।

ইংল্যান্ডের হয়ে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ : পাকিস্তানের বিপক্ষে তৃতীয় ওয়ানডেতে ১৭১ রানের অসাধারণ এক ইনিংস খেলেন অ্যালেক্স হেলস। ইংল্যান্ডের হয়ে যা ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ইনিংসের রেকর্ড। এর আগে ১৯৯৩ সাল অ্যাজবাস্টনে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ১৬৭ রান করে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ স্থানটি দখলে রেখেছিলেন রবিন স্মিথ।

এক ইনিংসে ইংলিশদের সর্বোচ্চ ছক্কা : ইংল্যান্ডের ৪৪৪ রানের রেকর্ড ইনিংসটিতে চার-ছক্কার বৃষ্টি দেখেছিল ক্রিকেটপ্রেমীরা। মঙ্গলবার ইংল্যান্ড-পাকিস্তান ম্যাচে মোট ছক্কা হয় ২১টি। এর মধ্যে ১৬টিই মেরেছেন ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা। স্বাগতিক ব্যাটসম্যানদের ১৬ ছক্কার মধ্যে বাটলার ৭, মরগান ৫ এবং অ্যালেক্স হেলস ৪টি মেরেছেন।

ইংল্যান্ডের দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরি : ৫১ বল মোকাবিলায় ৭ চার এবং সমান সংখ্যক ছক্কায় ৯০ রানের দ্রুততম একটি ইনিংস খেলেন ইংলিশ ব্যাটসম্যান জোস বাটলার। তবে হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করতে মাত্র ২২টি বল খেলেন তিনি। ইংল্যান্ডের হয়ে যা সবচেয়ে দ্রুততম হাফ সেঞ্চুরির রেকর্ড।

টানা ফিফটি : ব্যক্তিক্রমধর্মী একজন ব্যাটসম্যান হিসেবে আবার নিজের সেরাটা প্রমাণ করলেন ইংল্যান্ড ব্যাটসম্যান জো রুট। মঙ্গলবার ৮৬ বল মোকাবিলা করে ৮৫ রান করেন তিনি। এর ফলে টানা পাঁচ ম্যাচে হাফ সেঞ্চুরি করা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় স্থান করে নিলেন রুট। টানা পাঁচ ম্যাচে হাফ সেঞ্চুরি করে জেফরি বয়কট, গ্রাহাম গুচ, অ্যালেক স্টিয়ার্ট এবং জনাথন ট্রটদের কাতারে ঠাঁই করে নিয়েছেন তিনি।

ট্রেন্ট ব্রিজে সর্বোচ্চ ওডিআই জুটি : ট্রেন্ট ব্রিজে পাকিস্তানের বিপক্ষে অ্যালেক্স হেলস এবং জো রুট দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে ২৪৮ রান করেন। যে কোনো উইকেটে ট্রেন্ট ব্রিজে এটি সর্বোচ্চ জুটি। ইয়ান বেল এবং ট্রটিকে ছাড়িয়ে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে ওডিআইয়ে এটি ইংল্যান্ডের সর্বোচ্চ জুটির রেকর্ড।

পাকিস্তানের বিপক্ষে সেরা জুটির রেকর্ড : মঙ্গলবার হেলস এবং রুটের ২৪৮ রানের জুটি পাকিস্তানের বিপক্ষে যে কোনো উইকেটে ও যে কোনো ভেন্যুতে সর্বোচ্চ। ৩১.৪ ওভারে ৭.৮৩ রান রেটে সর্বোচ্চ জুটির এই রেকর্ড তৈরি হয়।

পাকিস্তান বোলারদের লজ্জা : ব্যাট হাতে পাকিস্তানের হয়ে ২২ বলে ১৪ রান করেছিলেন ওয়াহাব রিয়াজ। কিন্তু বল হাতে যেখানে আসল দায়িত্ব পালন করার কথা সেখানেই পাকিস্তানকে লজ্জায় ডুবালেন তিনি। ওভার প্রতি ১১ করে নিজের ১০ ওভারে ১১০ রান দিয়েছেন তিনি। ওয়ানডেতে পাকিস্তানের হয়ে কোনো বোলারের যা সর্বোচ্চ রান দেওয়ার রেকর্ড।

পাকিস্তানের দুর্ভাগ্যের দিন হেলস এবং বাটলারের মতো গুরুত্বপূর্ণ দুটি উইকেট পেলেও শেষে নো বলের কারণে সেগুলো হাতছাড়া হয়ে যায়। আর তার বলে নতুন জীবন পেয়েই বেপরোয়া হয়ে উঠে এই দুই ইংলিশ ব্যাটসম্যান।

এগারোতেও চমক : ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাকিস্তানের ১৬৯ রানে হারের ম্যাচটি নানা নাটকীয়তায় ভরপুর ছিল। আনপ্রেডিক্টেবল পাকিস্তানের সর্বোচ্চ ইংনিংসটাই এসেছে এগারোতম অবস্থানে ব্যাট করা বোলার মোহাম্মদ আমিরের ব্যাট থেকে। শেষদিকে পাকিস্তানের ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ৫৮ রানটি আমিরের ব্যাট থেকে না আসলে হয়ত লজ্জার পরিধিটা আরো লম্বা হতো পাকিস্তানের।

শেষ মুহূর্তে মাত্র ২৮ বল মোকাবিলা করে ৫৮ রানের ঝোড়ো একটি ইনিংসে খেলেন আমির। তার ইনিংসটি ৫টি চার এবং ৪টি ছক্কায় সাজানো ছিল। এর মধ্যে আদিল রশিদের বলে টানা তিনটি ছক্কা মেরে ট্রেন্ট ব্রিজের দর্শকদের কিছুটা কাঁপিয়ে দেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। আমিরের ৫৮ রানের ইনিংসটা সবশেষে ব্যাট করতে নামা ব্যাটসম্যানদের হয়ে সেরা ইনিংস। একাদশত অবস্থানে নেমে সবচেয়ে দ্রুত ফিফটির রেকর্ড তৈরি হয় আমিরের এ ইনিংসের মধ্য দিয়েই।

সূত্র: রাইজিংবিডি


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print

Warning: Parameter 1 to W3_Plugin_TotalCache::ob_callback() expected to be a reference, value given in /home/dinkhon24/public_html/wp-includes/functions.php on line 3297