মঙ্গলবার , ২৪ এপ্রিল ২০১৮
মূলপাতা » ফুটবল » ‘ইয়েমেনে ইরানি দূতাবাসে সৌদির বিমান হামলা’

‘ইয়েমেনে ইরানি দূতাবাসে সৌদির বিমান হামলা’

Iranইরান অভিযোগ করেছে, ইয়েমেনের রাজধানী সানায় ইরানি দূতাবাসে সৌদি আরবের যুদ্ধবিমান হামলা চালিয়েছে। এতে দূতাবাসের কয়েকজন নিরাপত্তারক্ষী আহত হয়েছেন।

ইরানের রাষ্ট্রীয় নিউজ চ্যানেল আইআরআইবির বরাত দিয়ে রাশিয়া টুডের ব্রেকিং নিউজে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখাপত্র হোসেইন জাবের আনসারি দাবি করেছেন, ‘সৌদি আরব ‘ইচ্ছাকৃতভাবে’ ইয়েমেনে ইরানি দূতাবাসে হামলা চালিয়েছে, যা কূটনৈতিক মিশন সুরক্ষার আন্তর্জাতিক আইনের চরম লঙ্ঘন। যে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে এবং যারা আহত হয়েছে, তার জন্য দায়ী সৌদি সরকার।’

ইয়েমেনে যুদ্ধরত সৌদি নেতৃত্বাধীন সামরিক জোটের মুখপাত্র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আহমেদ আসেরির উদ্ধৃতি দিয়ে রয়টার্স জানিয়েছে, তারা ইরানের অভিযোগ খতিয়ে দেখছে।

আসেরি জানিয়েছেন, বুধবার রাতে সানায় হুতিদের মিসাইল লাঞ্চার লক্ষ্য করে হামলা চালায় জোটের যুদ্ধবিমান। তিনি আরো জানান, সানায় পরিত্যাক্ত দূতাবাসসহ সাধারণ নাগরিকদের অবকাঠামোর সুবিধা নিচ্ছে হুতিরা। উল্লেখ্য, গৃহযুদ্ধ শুরু হওয়ার পর কয়েকটি দেশ সানা থেকে দূতাবাস সরিয়ে নেয়।

আসেরির ভাষ্য, ইয়েমেনে সব কূটনৈতিক মিশন পরস্পরকে তথ্য দিচ্ছে। কিন্তু হুতিদের দেওয়া তথ্যের কোনো বৈধ ভিত্তি নেই।

ইয়েমেনে ইরানি দূতাবাসে হামলার পর সৌদি আরব থেকে সব ধরনের পণ্য আমদানি নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে ইরান। বৃহস্পতিবার এ-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভার বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি। ইরানিয়ান স্টুডেন্টস নিউজ এজেন্সি (আইএসএনএ) এ তথ্য জানিয়েছে।

ইয়েমেনে গৃহযুদ্ধে সৌদি আরব সমর্থন করছে আব্দ মানসুর আল হাদির সরকারকে। আর ইরান সমর্থন করছে সরকারবিরোধী শিয়া হুতিগোষ্ঠীকে। এ নিয়ে সৌদি আরবের সঙ্গে ইরানের চরম মতপার্থক্য রয়েছে। সৌদি আরবের অভিযোগ, ইয়েমেনে হুতিদের অস্ত্র ও অর্থ দিয়ে সাহায্য করছে ইরান। কিন্তু ইরান এ অভিযোগ বরাবরই অস্বীকার করে আসছে।

এদিকে সৌদি আরবে শিয়া নেতা নিমর আল-নিমরের মৃত্যুদণ্ড কার্যকরকে কেন্দ্র করে ইরানে সঙ্গে সৌদি আরবের কূটনৈতিক উত্তেজনা বিরাজ করছে। ইরানে সৌদি দূতাবাস ও কনস্যুলেট শিয়াদের হামলা শিকার হয়। এর জেরে ইরানের সঙ্গে সব ধরনের সম্পর্ক ছিন্ন করার ঘোষণা দেয় সৌদি আরব। এমন উত্তেজনার মধ্যে ইয়েমেনে ইরানি দূতাবাসে সৌদির যুদ্ধবিমানের হামলার অভিযোগ মধ্যপ্রাচ্যের পরিস্থিতি আরো অস্থিতিশীল করে তুলতে পারে বলে অনেকে আশঙ্কা করছেন।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print