শুক্রবার , ২২ জুন ২০১৮
মূলপাতা » অন্যান্য » সাকা-মুজাহিদের রিভিউ শুনানি ১৭ নভেম্বর

সাকা-মুজাহিদের রিভিউ শুনানি ১৭ নভেম্বর

সাকা-মুজাহিদচূড়ান্ত রায়ে মৃত্যুদণ্ডাদেশ পাওয়া বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরী এবং জামায়াত নেতা আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের রায় পুনর্বিবেচনার (রিভিউ) আবেদনের শুনানি হবে আগামী ১৭ নভেম্বর।

আজ সোমবার সকালে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে বাদীপক্ষ প্রস্তুতির জন্য সময় আবেদন করলে আদালত তাদের আবেদন মঞ্জুর করে আগামী ১৭ নভেম্বর শুনানির তারিখ ধার্য করেন।

সাকা-মুজাহিদের আইনজীবীদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আজ সোমবার সকালে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে আপিল বিভাগের চার সদস্যের বেঞ্চ শুনানি মুলতবি করে নতুন তারিখ ধার্য করেন।

সাকা ও মুজাহিদের পক্ষে শুনানিতে অংশ নেন আইনজীবী অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন। পরে তিনি সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে বলেন, পুলিশি হয়রানির কারণে আমাদের আইনজীবীরা পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। মুজাহিদের আইনজীবী অ্যাডভোকেট শিশির মুনিরের বাসায় পুলিশ সম্প্রতি অভিযান চালিয়ে মামলার অনেক গুরুত্বপূর্ণ নথিপত্র নিয়ে গেছে। এসব গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্র উদ্ধার করার জন্য সময়ের প্রয়োজন। পরে আদালত মামলার শুনানি পিছিয়ে পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করেন।

এছাড়া খন্দকার মাহবুব সাংবাদিকদের বলেন, আমরা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর পক্ষে সাফাই সাক্ষী দেয়ার জন্য একটি আবেদন করেছিলাম, আদালত তাও খারিজ করে দিয়েছেন।এছাড়া আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের আইনজীবীকে পুলিশি হয়রানির বিষয়ে আদালতে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে আদালত তা আমলে না নিয়ে আর্জিটি খারিজ করে দেন এবং এ বিষয়ে তাদেরকে হাইকোর্ট বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

রাষ্ট্রপক্ষে শুনানিতে অংশ নেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

শুনানি শেষে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম তার কার্যালয়ে সাংবাদিকদের বলেন, সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরী ও আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের রিভিউ আবেদনের ওপর কোনো শুনানি হয়নি। আসামিপক্ষে সময়ের আবেদন করায় আদালত তা মঞ্জুর করেছেন।

তবে সাকা চৌধুরীর পক্ষে সাফাই সাক্ষী নেয়ার বিষয়ে আসামিপক্ষের আবেদন খারিজ করেছেন আদালত। পাশাপাশি মুজাহিদের আইনজীবীদের হয়রানি না করার বিষয়ে করা আবেদনও আদালত খারিজ করে দেন।

গত ১৫ অক্টোবর রাষ্ট্রপক্ষে অ্যাটর্নি জেনারেলের পক্ষ থেকে রিভিউ শুনানির দিন নির্ধারণের জন্য আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় আবেদন করা হয়। এর আগের দিন সাকা চৌধুরী ও মুজাহিদের পক্ষে আলাদাভাবে রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করেন তাদের আইনজীবীরা।

গত ৩০ সেপ্টেম্বর এ দুজনের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ করেন আপিল বিভাগ। পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশের পর নিয়ম অনুযায়ী ১৫ দিনের মধ্যে রিভিউ আবেদন করতে হয়। সে অনুযায়ী সময় শেষ হয়ে যাওয়ার একদিন আগেই রায় পুনর্বিবেচনার জন্য আবেদন করেন সাকা চৌধুরী ও মুজাহিদ।

গত ২৯ জুলাই মানবতাবিরোধী অপরাধে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর ফাঁসির আদেশ বহাল রাখেন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ। এ ছাড়া ১৬ জুন মানবতাবিরোধী অপরাধে আলী আহসান মুহাম্মাদ মুজাহিদের ফাঁসির রায় বহাল রেখে রায় দেন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ।

এর আগে ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় হত্যা, ধর্ষণ, অগ্নিসংযোগ, লুটপাটসহ বিভিন্ন অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ও আলী আহসান মুহাম্মাদ মুজাহিদের মৃত্যুদণ্ড দেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print