মঙ্গলবার , ১৭ জুলাই ২০১৮
মূলপাতা » প্রধান খবর » বৃষ্টি থাকতে পারে আরও দুই দিন

বৃষ্টি থাকতে পারে আরও দুই দিন

stromঘূর্ণিঝড় কোমেন-এর প্রভাবে বৃষ্টি হচ্ছে রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে। স্থলভাগে অবস্থান করা এই ঘূর্ণিঝড়ের কারণে আরও দুই দিন বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। এতে নগরীতে তীব্র জলাবদ্ধতার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

দেশের সাত বিভাগের বিভিন্ন স্থানে হালকা থেকে মাঝারি এবং খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও ঢাকা বিভাগের কোথাও কোথাও ভারী বৃষ্টির আশঙ্কা করা হচ্ছে। আবহাওয়াবিদ আবদুর রহমান বলেন, স্থলভাগে থাকা ঘূর্ণিঝড় কোমেনের প্রভাবে সারাদেশে বৃষ্টিপাত হচ্ছে। আরও দু-একদিন বৃষ্টি ঝরে দুর্বল হয়ে পড়বে কোমেন।

শনিবার আবহাওয়ার সতর্কবার্তায় বলা হয়, দেশের মধ্যাঞ্চল ফরিদপুরের কাছে অবস্থানরত স্থল নিম্নচাপটি পশ্চিম দিকে সরে গিয়ে বর্তমানে খুলনা ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এটি আরও পশ্চিম দিকে স্থলভাগের দিকে অগ্রসর হয়ে বৃষ্টি ঝরিয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হয়ে যেতে পারে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর এলাকায় বায়ু চাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করার কারণে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকা এবং সমুদ্র বন্দরসমূহের ওপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরসমূহকে তিন নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলেছে আবহাওয়া অফিস।

এজন্য উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরা নৌকা ও ট্রলারসমূহকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থাকতে বলা হয়েছে। এদিকে সকাল থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি হচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ বৃষ্টি হয়েছে কক্সবাজারে ২০৮ মিলিমিটার। এছাড়া চট্টগ্রামে ১৪৫, কুতুবদিয়ায় ১১২, টেকনাফে ৯০, রাঙ্গামাটিতে ৭১ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। ঢাকায় শুক্রবার বিকাল ৩টা থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় ৫১ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে আবহাওয়া অফিস।

নগরীতে সন্ধ্যা পর্যন্ত মুষলধারে বৃষ্টি হওয়ায় বিভিন্ন স্থানে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। বিশেষ করে মগবাজার, শান্তিনগর, মিরপুরের কাজীপাড়া এলাকার রাস্তায় পানি জমে থাকায় দুর্ভোগে পড়েছেন নগরবাসী। বিভিন্ন স্থানের রাস্তা জরাজীর্ণ হয়ে এই দুর্ভোগ আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। এছাড়া সীতাকুণ্ড, সিলেট, ফেনীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানেও বৃষ্টিপাত হচ্ছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print