রবিবার , ২২ এপ্রিল ২০১৮
মূলপাতা » বিনোদন » বিয়ে করলেন শহীদ কাপুর

বিয়ে করলেন শহীদ কাপুর

mira sahidমাত্র আধা ঘণ্টার সাদামাটা এক অনুষ্ঠানে বিয়ের পর্ব সারলেন বলিউডের অভিনেতা শহিদ কাপুর ও মিরা রাজপুত। গতকাল ৭ জুলাই সকালে ৪০ জন আমন্ত্রিত অতিথির উপস্থিতিতে দিল্লির গুড়গাঁওয়ে ওয়েস্ট গ্রিন ফার্ম হাউসে মালাবদল করেন শহিদ-মিরা। কড়া নিরাপত্তার মধ্যে আর্য সমাজ রীতি অনুযায়ী বিয়ে করেন তাঁরা। পরে সন্ধ্যায় গুড়গাঁওয়ের ট্রাইডেন্ট হোটেলে বিবাহোত্তর সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়। সেখানে নবদম্পতিকে আশীর্বাদ জানান প্রায় ৫০০ আমন্ত্রিত অতিথি।

এ প্রসঙ্গে ঘনিষ্ঠ সূত্রের বরাতে মিড-ডে ডটকম জানিয়েছে, বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয় সকাল ১১টায়। মাত্র আধা ঘণ্টার মধ্যেই তা শেষ হয়ে যায়। শহিদ ও মিরার পরিবারের সদস্যসহ মোট ৪০ জন অতিথি সেখানে হাজির ছিলেন। বিয়ের পর সংক্ষিপ্ত ফটোসেশনে অংশ নেন শহিদ-মিরা। সন্ধ্যায় ট্রাইডেন্ট হোটেলে বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হয়। ১২ জুলাই মুম্বাইয়ের প্যালাডিয়াম হোটেলে আরেকটি বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হবে। জমকালো সেই অনুষ্ঠানে আরও অনেকের সঙ্গে হাজির থাকবেন শহিদের বন্ধু ও সহকর্মীরা।

শহিদের বিয়ের পোশাকের নকশা করেছেন কুনাল রাওয়াল। আর অনামিকা খান্নার নকশা করা পোশাক পরেন মিরা রাজপুত। শহিদ ও মিরার পরিবারের সদস্যেরা রাধা স্বামী সৎসঙ্গ বেয়াস নামের একটি ধর্মীয় সংগঠনের অনুসারী। এ জন্য বিয়ের ভোজে হরেক রকম নিরামিষ খাবার ছাড়া আর কিছুই রাখা হয়নি

সকালে ওয়েস্ট গ্রিন ফার্ম হাউসে শহিদ-মিরা বিয়ে করার সময় কড়া নিরাপত্তাব্যবস্থা নিশ্চিত করা হয়। ১৬ ফুট উঁচু দেয়াল ঘেরা ফার্ম হাউসের ভেতর আমন্ত্রিত অতিথি ছাড়া আর কাউকেই প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। শুধু তাই নয়, ফার্ম হাউসে যাওয়ার জন্য যে রাস্তা সেটিও বন্ধ করে দেওয়া হয়। সন্ধ্যায় বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান শুরুর আগেই বিলাসবহুল পাঁচতারা হোটেল ট্রাইডেন্টের প্রায় ৫০টি রুম ভাড়া করা হয় শহিদের পরিবারের সদস্য ও অতিথিদের জন্য।

এদিকে শহিদের বিয়ের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ না পেলেও বিশেষ দিনটিতে সাবেক প্রেমিককে বিশেষ বার্তা দিয়েছেন ‘হিরোইন’ তারকা কারিনা কাপুর খান। শহিদকে উদ্দেশ করে এক সাক্ষাৎকারে কারিনা বলেন, ‘শহিদকে শুভকামনা জানাচ্ছি। বিয়ে চমৎকার একটি যাত্রা, অসাধারণ এক অনুভূতি। শহিদের জন্য আনন্দের একটি মুহূর্ত এটি। আমি তাঁর সুখী দাম্পত্য জীবন ছাড়া আর কিছুই চাই না।


আপনার মতামত

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


Email
Print